শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:২৯ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি :
Welcome To Our Website...
শিরোনাম :
পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন সাবেক ছাত্র নেতা মিজানুর রহমান মাগুরাবাসিকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন কাজী রফিকুল ইসলাম মাগুরাবাসিকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মাগুরা জেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক আলী আহম্মদ পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মাগুরা জেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক সাকিব পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন শরিয়ত উল্লাহ বঙ্গবন্ধু ল’টেম্পল কলেজের শিক্ষার্থীদের উদ্যোগে ইফতার ও দোয়া মাহফিল প্রাথমিক শিক্ষকদের অনলাইন বদলি আবেদন শুরু শনিবার চট্টগ্রামে ১০ জুয়াড়ি গ্রেফতার চট্টগ্রামে চোরাই সিএনজিসহ গ্রেপ্তার ২ চট্টগ্রামে চোলাই মদসহ গ্রেপ্তার ৪

চাঁদাবাজির দায়ে ওএসডি করে সরানো হল ডা. ঢালীকে

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪
  • ৩৪ বার পঠিত

রাজনৈতিক সংগঠনকে ব্যবহার করে চাঁদাবাজির অভিযোগে অবশেষে বিতর্কিত ও আলোচিত শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. বেলায়েত হোসেন ঢালীকে ওএসডি করা হয়েছে। একই সঙ্গে তাকে রাঙামাটি মেডিকেল কলেজ থেকে দিনাজপুরের এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজে বদলি করা হয়।


গত ১১ ফেব্রুয়ারি স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব সারমিন সুলতানা স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে তাকে ওএসডি করে রাঙামাটি মেডিকেল কলেজ থেকে বদলি করে ৭ কর্মদিবসের মধ্যে নতুন কর্মস্থলে যোগ দিতে বলা হয়। অন্যথায় ৮ম কর্মদিবসে বর্তমান কর্মস্থল থেকে তাৎক্ষণিক অব্যাহতি মর্মে গণ্য হওয়ার কথাও উল্লেখ করা হয় ওই প্রজ্ঞাপনে।
সরকারি চিকিৎসক হলেও নিয়মিত কর্মস্থলে অনুপস্থিত, সরকার উৎখাতের আন্দোলন, রাজনৈতিক সংশ্লিষ্টতা ও সংগঠনকে ব্যবহার করে চাঁদাবাজিতে জড়িয়ে পড়েন ডা. বেলায়েত হোসেন ঢালী।সম্প্রতি চট্টগ্রাম বিভাগীয় পরিচালকের (স্বাস্থ্য) কার্যালয়ে এমন অভিযোগ জমা পড়ে। এর পরিপ্রেক্ষিতে ওই চিকিৎসকের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু হয়।


চট্টগ্রাম বিভাগীয় পরিচালকের (স্বাস্থ্য) কাছে দেওয়া লিখিত অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে, ডা. বেলায়েত বিএনপির একটি সহযোগী সংগঠনের চট্টগ্রাম শাখার সদস্য সচিব হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন। সেই পদ ব্যবহার করে সংগঠনের সদস্য এবং বিভিন্ন ব্যবসায়ীর কাছ থেকে চাঁদা আদায় করছেন। অভিযোগ পাওয়ার পর বিভাগীয় পরিচালক (স্বাস্থ্য) ডা. মো. মহিউদ্দিন স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে ডা. বেলায়েতের কর্মস্থল রাঙামাটি মেডিকেল কলেজ অধ্যক্ষকে অনুরোধ করা হয়। এ বিষয়ে তদন্ত চলা অবস্থায় ১১ ফেব্রুয়ারি স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের উপসচিব সারমিন সুলতানা স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে বেলায়েতকে ওএসডি করে রাঙামাটি মেডিকেল কলেজ থেকে সরিয়ে দিনাজপুর এম আবদুর রহিম মেডিকেল কলেজে বদলি করা হয়।


জানা যায়,ডা. বেলায়েত নারী ও শিশু অধিকার ফোরাম চট্টগ্রাম মহানগর শাখার সদস্যসচিব হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন। বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান এ সংগঠনের উদ্যোক্তা। বেগম সেলিমা রহমান সংগঠনটির কেন্দ্রীয় কমিটির আহ্বায়ক এবং অ্যাডভোকেট নিপুণ রায় চৌধুরী সদস্য সচিব হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন।
এ বিষয়ে ডা. বেলায়েত হোসেন ঢালী গণমাধ্যমকে বলেন, মানুষের জন্য কাজ করা আমার নেশা। চিকিৎসা পেশায় নিয়োজিত হওয়ার পর একদিনও মানুষকে সেবা করা থেকে বিরত থাকিনি। এমনকি করোনাকালেও চিকিৎসাসেবা চালিয়ে গেছি, করোনা আক্রান্ত হয়েছি। সেই নেশা থেকেই নারী ও শিশু অধিকার ফোরামের সঙ্গে আমার সম্পৃক্ততা। এটা কোনো রাজনৈতিক দলের সহযোগী সংগঠন নয়। তাছাড়া এ সংগঠনের কোনো গঠনতন্ত্রও নেই। এ সংগঠনের উদ্দেশ্য মানবিক কাজে সাহায্য-সহায়তা করা।


চাঁদা আদায়ের অভিযোগ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আবুল কালাম আজাদ নামে যে ব্যক্তি আমার নামে অভিযোগ করেছেন বাস্তবে উল্লিখিত ঠিকানায় এমন কেউ থাকেন না। নারী ও শিশু অধিকার ফোরামের একজন ব্যক্তি আমার কর্মকাণ্ডে ঈর্ষান্বিত হয়ে ছদ্মনাম ব্যবহার করে অপপ্রচার চালাচ্ছেন।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By Bangla Webs