বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৪:১২ পূর্বাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি :
Welcome To Our Website...

বাঘা বাঘা অনলাইন ব্যবসায়ীদের ধরা হচ্ছে, জানালেন এনবিআর চেয়ারম্যান

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২১ মার্চ, ২০২২
  • ২০১ বার পঠিত

জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম বলেছেন, অনলাইনে ব্যবসায় মহিলাদের আয়ের সুযোগ আছে, সেখানে কঠোর হবো না। তবে অনলাইনে বাঘা বাঘা ব্যবসায়ীদের ধরা হচ্ছে। আগামীতে অনলাইন বিজনেস বিশাল ট্রেড দখল করবে। সেদিকে আমরা নজর রাখছি।

রোববার (২০ মার্চ) চট্টগ্রাম চেম্বার ও চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন চেম্বারে ২০২২-২৩ অর্থবছরের প্রাক-বাজেট মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

আরও পড়ুন:

শিশুদের কৃতিত্ব ‘নিজে’ নিতে গিয়ে তোপের মুখে মেয়র রেজাউল

হাসপাতালে বিয়ে, ১১ দিনের মাথায় মারা গেলেন সেই ফাহমিদা

একবার ধর্ষণ করে হত্যার পর মেয়েটিকে আবার ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়

ধর্ষনের পর ধারালো ব্লেড দিয়ে মৃত্যু নিশ্চিত করে রাজিয়ার

আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম বলেন, ইলেক্ট্রনিক পণ্যে আমদানির ক্ষেত্রে কোয়ালিটি পণ্য বিবেচনা করা হবে। দেশীয় পণ্যে প্রোডাকশন বাড়ানোর জন্য আমাদের উদ্যোগ থাকবে। যেসব জিনিস আমাদের বানানো দরকার, সেসব জিনিস আমাদের উৎপাদন করতে হবে। সেগুলো আমদানিতে এনবিআরের উৎসাহ থাকবে না।

সভায় উইম্যান চেম্বারের এক সদস্যের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে তিনি বলেন, বিউটি পার্লারের ভ্যাট কমানো হবে না।

চট্টগ্রাম চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলমের সভাপতিত্বে চেম্বার হলে ও মেট্রোপলিটন চেম্বারের সভাপতি খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে হোটেল আগ্রাবাদে আলাদাভাবে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় উপস্তিত ছিলেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্য মো. মাসুদ সাদিক , জাকিয়া সুলতানা ও সামস উদ্দিন আহমেদ , চেম্বার সহসভাপতি সৈয়দ মোহাম্মদ তানভীর, চট্টগ্রাম কাস্টমস কমিশনার মোহাম্মদ ফখরুল আলম, ভ্যাট কমিশনার মোহাম্মদ আকবর হোসেন, বন্ড কমিশনার মাহবুবুর রহমান।

চট্টগ্রাম চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম বলেন, বর্তমান অর্থনৈতিক প্রেক্ষাপট বিশ্ব মহামারী করোনাভাইরাসের কারণে গত দুই বছর যাবৎ সমগ্র পৃথিবীর ব্যবসা-বাণিজ্য ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত প্রায় লক্ষ কোটি টাকার প্রণোদনা প্যাকেজসহ সরকারের গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপের কারণে আমাদের অর্থনীতি পুনরুদ্ধার প্রক্রিয়া যথেষ্ট কার্যকর বলে প্রমাণিত হয়েছে। বর্তমানে মহামারীর প্রকোপ অনেকটা কমে আসায় অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড মোটামুটি পুরোদমে চালু হয়েছে।

চট্টগ্রাম চেম্বারের পক্ষ থেকে আগামী বাজেট প্রণয়নের ক্ষেত্রে প্রস্তাবনা হলো−বৃহত্তর চট্টগ্রামে গভীর সমুদ্রবন্দর, মহেশখালী পাওয়ার হাব, বঙ্গবন্ধু টানেল, বে-টার্মিনাল, বিমানবন্দর এক্সপ্রেসওয়ে , মিরসরাই বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্পনগর ইত্যাদি মেগা প্রকল্প দ্রুতগতিতে এবং নির্দিষ্ট সময়ে সম্পন্ন করার লক্ষ্যে আসন্ন বাজেটে অগ্রাধিকারভিত্তিতে প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ রাখা, বন্ধ বা ক্ষতিগ্রস্ত শিল্পকারখানা পুনরায় চালু করাসহ ১৪টি দাবি জানানো হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By Deshjog TV