রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০২:২৩ অপরাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি :
Welcome To Our Website...

মাদ্রাসায় ৩ ছাত্রকে বলাৎকার করে ধরা শিক্ষক

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ৩ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ২২৮ বার পঠিত

চট্টগ্রামের ইপিজেড এলাকার এক মাদ্রাসা শিক্ষকের হাতে বলাৎকারের শিকার হয়েছে তিন ছাত্র। ভুক্তভোগী এক মাদ্রাসা ছাত্রের মায়ের করা মামলায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে হাফেজ আলামিন নামের ওই শিক্ষককে।

গ্রেপ্তার হাফেজ আলামিন (২২) ইপিজেড এলাকার নূরানি তালিমুল কুরআন হাফিজুল মাদ্রাসার শিক্ষক। তিনি বাগেরহাট জেলার মংলা থানার বাসিন্দা। নানা অজুহাতে বিভিন্ন সময়ে মাদ্রাসার অন্তত তিন ছাত্রকে তিনি বলাৎকার করেন। দুই ছাত্রের তথ্যের ভিত্তিতে মাদ্রাসায় খবর নিতে যান তাদের অভিভাবক। পরে সেখানে গিয়ে বলাৎকারের সত্যতা পেলে থানায় মামলা দায়ের করা হয়।

ভুক্তভোগীর এক ছাত্রের মা  বলেন, ‘গত বৃহস্পতিবার আমার ছেলে ও মামাতো ভাই দু’জন বাড়িতে আসে। আমার ছেলে কুরআনের ২৭ পারা মুখস্থ করেছে। আমার ছেলে আর মাদ্রাসায় যাবে না বলে জানায়। তখন তাকে কারণ জিজ্ঞেস করলে বলাৎকারের কথা বলে। এরপর আমার মামতো ভাইকে জিজ্ঞেস করলে সেও একই কথা বলে। এরপর তাদের দু’জনকে নিয়ে মাদ্রাসায় যাই। সেখানে গিয়ে শিক্ষক আলামিনকে জিজ্ঞাসা করলে তিনি একপর্যায়ে দোষ স্বীকার করেন। এসময় ওখানে পুলিশও পৌঁছায়।

ঘটনা বর্ণনা শুনে পুলিশ ওই শিক্ষককে আটক করে। এরপর বিকালে আরেক ভুক্তভোগী ছাত্রের মা বাদি হয়ে ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা করেন বলে জানান তিনি।

গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করে ইপিজেড থানার পরিদর্শক (তদন্ত) নুরুল বাশার বলেন, ‘ভুক্তভোগীর অভিভাবক বাদি হয়ে শিক্ষক হাফেজ আলামিনের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেন। মামলার পরপরই আসামিকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে।’

এ ঘটনার ভুক্তভোগী তিন ছাত্রকে আলামত পরীক্ষার জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

 

সূত্র: চট্টগ্রাম প্রতিদিন

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By Deshjog TV