শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ০৭:১১ পূর্বাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি :
Welcome To Our Website...
শিরোনাম :
পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন সাবেক ছাত্র নেতা মিজানুর রহমান মাগুরাবাসিকে পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন কাজী রফিকুল ইসলাম মাগুরাবাসিকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মাগুরা জেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক আলী আহম্মদ পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মাগুরা জেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক সাকিব পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন শরিয়ত উল্লাহ বঙ্গবন্ধু ল’টেম্পল কলেজের শিক্ষার্থীদের উদ্যোগে ইফতার ও দোয়া মাহফিল প্রাথমিক শিক্ষকদের অনলাইন বদলি আবেদন শুরু শনিবার চট্টগ্রামে ১০ জুয়াড়ি গ্রেফতার চট্টগ্রামে চোরাই সিএনজিসহ গ্রেপ্তার ২ চট্টগ্রামে চোলাই মদসহ গ্রেপ্তার ৪

রাশিয়াকে যে প্রস্তাব দিলেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
  • ৬২১ বার পঠিত

রাশিয়ার আগ্রাসন ঠেকাতে রোববার (২৭ ফেব্রুয়ারি) চতুর্থ দিনের মতো যুদ্ধ চালিয়ে যাচ্ছে ইউক্রেনের সেনারা। রাশিয়ার পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে, যুদ্ধ নিয়ে রাশিয়ার সঙ্গে আলোচনায় বসতে ইউক্রেনের একটি প্রতিনিধি দল পাশের দেশ বেলারুশে এসেছে।

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি এই প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছেন। একই সঙ্গে তিনি চলমান যুদ্ধ বন্ধ করতে ইউরোপের অন্য কোনো শহরে আলোচনায় বসতে রাজি হয়েছেন।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট বলেন, মিনস্কে আলোচনা সম্ভব হতে পারত যদি রাশিয়া বেলারুশিয়ান ভূখণ্ড থেকে ইউক্রেন আক্রমণ না করত। তবে অন্য স্থানে আলোচনার দরজা খোলা আছে।

তিনি বলেন, ‘যদি আপনার অঞ্চল থেকে কোনো আক্রমণাত্মক পদক্ষেপ না হতো, আমরা মিনস্কে কথা বলতে পারতাম…। অন্য শহরগুলোকে আলোচনার স্থান হিসেবে ব্যবহার করা যেতে পারে’।

জেলেনস্কি বলেন, ‘অবশ্যই আমরা শান্তি চাই, আমরা দেখা করতে চাই, আমরা যুদ্ধের অবসান চাই। ওয়ারশ, ব্রাতিস্লাভা, বুদাপেস্ট, ইস্তাম্বুল, বাকু—এসব জায়গায় আলোচনায় বসার জন্য আমরা রাশিয়ার কাছে প্রস্তাব করেছি’।

তিনি আরও বলেন, ‘অন্য যেকোনো শহরও আমাদের জন্য উপযুক্ত হবে—এমন একটি দেশে, যার ভূখণ্ড থেকে আমাদের ওপর ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করা হয়নি। এটিই একমাত্র উপায়, যাতে আলোচনা ফলপ্রসূ হতে পারে এবং সত্যিই যুদ্ধের অবসান ঘটাতে পারে’।

প্রসঙ্গত, ২৪ ফেব্রুয়ারি ভোর ৫টা ৫৫ মিনিটে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ইউক্রেনে সেনা অভিযান চালানোর ঘোষণা দেন। এর কয়েক মিনিট পরই ইউক্রেনে বোমা ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা শুরু হয়। এরপর থেকে ইউক্রেন ও রাশিয়ার মধ্যে যুদ্ধ চলছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Developed By Bangla Webs